শ/ষ/স-এর উচ্চারণ কখন ‘শ’-এর মতো হবে?

এর উচ্চারণের ক্ষেত্রে দুটি কথা মনে রাখতে হবে।
১. ত-বর্গের বর্ণ ব্যতীত অন্য বর্ণের সঙ্গে যুক্ত ‘স’-এর উচ্চারণ ‘শ’-এর মতো হবে।
যেমন: পুরস্কার। এখানে ‘স’-টি যুক্ত হয়েছে ক-বর্গের (ক) বর্ণের সঙ্গে। তাই এখানে ‘স’-টির উচ্চারণ হবে ‘শ’-এর মতো। সুতরাং এ শব্দটির উচ্চারণ হবে ‘পুরোশ্ কার্’ (‘পুরোস্ কার্’ নয়)।

২. শব্দের মধ্যে বা শেষে কোনো বর্ণের সঙ্গে যুক্ত হলে উক্ত শ/ষ/স-এর উচ্চারণ ‘শ’-এর মতো হবে।
যেমন: কষ্ট। এখানে ‘ষ’-টি ট-এর সাথে যুক্ত হয়ে শব্দের শেষে বসেছে। তাই এখানে ‘ষ’-এর উচ্চারণ হবে ‘শ’-এর মতো। সুতরাং এ শব্দটির উচ্চারণ হবে ‘কশ্ টো’ (‘কস্ টো’ নয়)।

আরও উদাহরণ:
বিশ্ব (বিশ্ শো), অশ্ব (অশ্ শো), আস্পর্ধা (আশ্ পর্ ধা), তস্কর (তশ্ কর্), বিস্ফোরণ (বিশ্ ফোরোন্), বৃষ্টি (বৃশ্ টি), সুষ্ঠু (শুশ্ ঠু), উষ্ণ (উশ্ নো), বিষ্ণু (বিশ্ নু), শাশ্বত (শাশ্ শতো)।

Facebook Comments
Spread the love